ফাইনালে হেরে আবারও স্বপ্নভঙ্গ বাংলাদেশের

ক্রীয়া প্রতিবেদক

0

ফাইনালে হেরে আবারও স্বপ্নভঙ্গ বাংলাদেশের। কাঠমান্ডুর রঙ্গশালা স্টেডিয়ামে, আজ তিন জাতি টুর্নামেন্টের ফাইনাল ম্যাচ সংঘটিত হয়। ফাইনাল ম্যাচে নেপালের কাছে ২-১ গোল ব্যবধানে হেরে রানার্স আপ হয়েই টুর্নামেন্ট শেষ করল বাংলাদেশ জাতিয় ফুটবল দল।

বাংলাদেশ ফিরিয়ে আনকে পারেনি সেই ১৯৯৯ সালের স্মৃতি। ম্যাচটি জিতলে দেড় যুগ পর প্রথম আন্তর্জাতিক ট্রফির স্বাদ পেতো বাংলাদেশ।

খেলার শুরু থেকে আক্রমনাত্মক ফুটবল খেলে নেপাল জাতীয় ফুটবল দল। ১৮ মিনিটে এগিয়ে যায় স্বাগতিকরা। সুনীল বালের কর্নার থেকে হেডে বল বিপদমুক্ত করেছিলেন সেন্টার ব্যাক মেহেদী হাসান। ফিরতি বলে বক্সের মধ্যে থেকে সনজোগ রায় জোরালো শট নিলে বাংলাদেশের মিডফিল্ডার মানিক হোসেনের দু পায়ের ফাঁক গলে দূরের পোস্ট দিয়ে জালে চলে যায়।

bangladesh vs nepal

ব্যবধান বাড়ে ৪২ মিনিটে। নেপাল লেফটব্যাক রঞ্জিত ধিমাল, মিডফিল্ডার সনজোগ ও ফরোয়ার্ড বিশাল রায়ের রসায়নে ফাঁকা হয়ে যায় বাংলাদেশের রক্ষণভাগ। পোস্ট ছেড়ে বের হয়ে আসা আনিসুরের পাশ দিয়ে জোরালো শটে জালে জড়িয়েছেন বিশাল।

প্রথমার্ধে দুই গোলে পিছিয়ে থাকার পর শেষ মুহূর্তে মাহবুবুর রহমান সুফিলের গোলে ঘুরে দাঁড়ায় বাংলাদেশ। ম্যাচের ৮২তম মিনিটে জামাল ভূঁইয়ার কর্নার কিক থেকে নিচু হেড করে লক্ষ্যভেদ করেন মাহবুবুর রহমান সুফিল।

সোমবার (২৯ মার্চ) বিকেল ৫টা ৪৫ মিনিটে নেপাল ও বাংলাদেশের মধ্যে ম্যাচটি শুরু হয়। এই ম্যাচটি জিতলে দেড় যুগ পর প্রথম আন্তর্জাতিক ট্রফিতে হাত রাখার সুযোগ পেত বাংলাদেশ। সর্বশেষ ২০০৩ সালে ঘরের মাঠে সাফ চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল তারা। বিদেশের মাটিতে বাংলাদেশ শেষবার ফাইনাল জিতেছিল ১৯৯৯ সালে। এসএ গেমসে নেপালের মাটিতেই স্বাগতিকদের ১-০ গোলে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল বাংলাদেশ।